ফারইস্টের বিরুদ্ধে বিমার টাকা আত্মসাতের অভিযোগ

শুক্রবার, মে ১৩, ২০২২

গাইবান্ধা: গাইবান্ধার ফারইস্ট ইসলামী লাইফ ইনস্যুরেন্সের বিরুদ্ধে বিমার মেয়াদ পূর্ন হওয়ার পরও গ্রাহকের টাকা না দেওয়ার অভিযোগ পাওয়া গেছে। ভুক্তভোগীরা জানান গত তিন মাস ধরে ঘুরেও তারা টাকা না পাওয়ায় হয়রানির শিকার হচ্ছেন।

এ ব্যপারে ভুক্তভোগী লিমা বেগম বলেন, অনেক কষ্টে করে টাকা জমা করেছি। টাকা পাওয়ার আসায় ঘুরে ঘুরে হয়রান হয়ে পড়েছি। এই টাকা না পেলে আমরা নিঃস হয়ে যাব। গাইবান্ধা ফারইস্ট ইসলামী ইনস্যুরেন্সে আমাদের নানা ধরনের প্রতিশ্রুতি দিয়ে এসব টাকা জমা করতে বলেছে। এখন তারা আমাদের টাকা না দিয়ে টালবাহানা করছে।

শুধু তিনি নন, তার মতো জেলার ৫০০ খেটে খাওয়া মানুষের জমানো প্রায় তিন কোটি টাকা নিয়ে উধাও ম্যানেজার। গত তিন মাস ধরে তার কোন খোঁজ পাওয়া যাচ্ছে না। বিমার মেয়াদ শেষ হওয়ার পরও টাকা না পাওয়ায় হতাশ তারা। প্রতিদিনই শতাধিক গ্রাহক পাওনা টাকা পাওয়ার আশায় অফিসে আসলেও তাদের পাওনা টাকা পাওয়ার ব্যপারে কোন পদক্ষেপ নিচ্ছে না কর্তৃপক্ষ।

এ বিষয়ে গাইবান্ধা ফারইস্ট ইসলামী লাইফ ইনস্যুরেন্স কোম্পানির জোন ইনচার্জ আনোয়ার হোসেন বলেন, গ্রাহকদের কাগজপত্র প্রধান কার্যালয়ে পাঠানো হয়েছে। কোম্পানি থেকে টাকা পাওয়া গেলে পর্যায়ক্রমে সকলের টাকা পরিশোধ করা হবে।

উল্লেখ্য, ২০০০ সাল থেকে শহরের পার্করোড়ে ফারইস্ট ইসলামী লাইফ ইনস্যুরেন্সের তাদের কার্যক্রম শুরু করে। এব্যাপারে সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কমকতা ওসি মাসুদর রহমান বলেন, এখন পর্যন্ত আমাদের কাছে কেউ অভিযোগ করেনি। অভিয়োগ পেলে প্রয়োজনীয় আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হবে।