‘এত বড় ভুঁড়ি নিয়ে সে নড়তেই পারছিল না’

শনিবার, জুন ১, ২০১৯

স্পোর্টস ডেস্ক : বিশ্বকাপে নিজেদের প্রথম ম্যাচেই লজ্জাজনক হার পাকিস্তানের। গতকাল শুক্রবার নটিংহামের ট্রেন্ট ব্রিজে উইন্ডিজের কাছে সাত উইকেটে হেরেছে সরফরাজ আহমেদের পাকিস্তান। দলের সমালোচনায় মুখর পাকিস্তানের সাবেক ক্রিকেটাররা। দলপতি সরফরাজকে রীতিমতো ধুয়ে দিয়েছেন রাওয়ালপিণ্ডি এক্সপ্রেস-খ্যাত পাকিস্তানের কিংবদন্তি স্পিডস্টার শোয়েব আখতার।

নিজের ইউটিউব চ্যানেলে শোয়েব বলেন, ‘সরফরাজ যখন টস করতে এলো তখনই দেখেছি ওর ভুঁড়ি বেরিয়ে আসছে। গাল চর্বিতে ভরা। মুখটা ফুলে আছে। ওই প্রথম পাকিস্তান অধিনায়ক, যাকে দেখে আমার পুরোপুরি আনফিট বলে মনে হলো। নিজেকে তো ও নাড়াতেই পারছিল না! কিপিং করার সময় মনে হলো যেন নিজের সঙ্গেই লড়াই করছে। এমন অধিনায়ক কী করে দলকে সামনে থেকে নেতৃত্ব দেবে!’

ম্যাচের পর শোয়েব টুইট করেছিলেন, ‘বাকরুদ্ধ।‘ পরে অবশ্য তিনি দ্বিতীয় টুইটে পাকিস্তানের সমর্থনে পাশে দাঁড়িয়েছেন। লিখেছেন, ‘খেলা শেষ হয়ে গেছে। আমার আবেগ আর ভাবনা থেকেই বলছি। ছেলেগুলোকে সমর্থন করতে হবে। তারা আমাদের দেশের হয়ে প্রতিনিধিত্ব করছে। পুরো বিশ্বকাপেই আমাদের সমর্থন প্রয়োজন ওদের।’

শুক্রবারের ম্যাচে ক্যারিবীয়দের দুর্দান্ত বোলিং আক্রমণের সামনে পাকিস্তানের ব্যাটসম্যানরা একরকম অসহায় আত্মসমর্পণ করেছেন। মাত্র ১০৫ রানে ইনিংস গুটিয়ে যায় পাকিস্তানের। একটা সময় তো মনে হয়েছিল, শতক পার করতে পারবে না পাকিস্তান। শতক পার হয়েছে ঠিক, তবে বিশ্বকাপে নিজেদের প্রথম ম্যাচে লজ্জাজনক ব্যাটিং উপহার দিয়েছে তারা। বিশ্বকাপের পাকিস্তানের সর্বনিম্ন সংগ্রহ ৭৪ রান। ১৯৯২ সালের বিশ্বকাপে, ইংল্যান্ডের বিপক্ষে। অবশ্য এবার তার চেয়ে কিছু বেশি রান করেছে তারা।