ভোটের আগেই সরকার ৩৫-৫০ আসন কেটে নেয়ার ষড়যন্ত্র করছে: মান্না

বুধবার, ডিসেম্বর ১৯, ২০১৮

বগুড়া: জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের অন্যতম শীর্ষ নেতা ও নাগরিক ঐক্যের আহ্বায়ক মাহমুদুর রহমান মান্না বলেছেন, নির্বাচনের আগেই সরকার ৩৫-৫০ আসন কেটে নেয়ার ষড়যন্ত্র করছে। এ জন্য ধানের শীষের বহু প্রার্থীর প্রার্থিতা বাতিল করা হচ্ছে। বেছে বেছে জনপ্রিয় প্রার্থীদের গ্রেফতার করে ও প্রচারে হামলা চালিয়ে বিনা ভোটে জয়ী হওয়ার নীলনকশা করছে।
আজ বুধবার সকালে বগুড়া প্রেসক্লাবে এক সংবাদ সম্মেলনে এসব অভিযোগ করেন তিনি।
বগুড়া-২ (শিবগঞ্জ) আসনের এ প্রার্থী বলেন, সরকার যদি নীলনকশার নির্বাচন বাস্তবায়ন করতে চায়, আর সেই নীলনকশা অনুযায়ী ৩৫-৫০ আসনে ভোটের আগেই জয় নিশ্চিত করে ফেলে, তখন আমরা বসে সিদ্ধান্ত নেব।
তিনি বলেন, শত প্রতিকূলতা সত্ত্বেও বাকি ২৫০ আসনে ভোট করে যদি দেখি ঐক্যফ্রন্ট সরকার গঠন করতে পারবে, তখন আমরা লড়াই করব। নতুবা আমরা বসে সিদ্ধান্ত নেব। নীলনকশার নির্বাচন এ দেশে হতে দেব না।

বিরোধী দলের প্রার্থীদের ওপর হামলার নিন্দা জানিয়ে মাহমুদুর রহমান মান্না বলেন, সরকারের চাপ থাকায় মিডিয়ায় বিরোধীদের ওপর হামলা ও নির্বাচনী সংঘাতের খবর ও চিত্র সঠিকভাবে প্রকাশ করা হচ্ছে না।
নাগরিক ঐক্যের আহ্বায়ক বলেন, এখনকার আওয়ামী লীগ আর বঙ্গবন্ধুর আওয়ামী লীগ এক নয়। নৌকা এখন দুঃসাহস, দুঃস্বপ্ন ও গণতন্ত্র হরণের প্রতীক। আর ধানের শীষ গণতন্ত্রের লড়াইয়ের প্রতীক।