ঐক্যের বিজয় অনিবার্য, অবধারিত : ড.কামাল

বুধবার, অক্টোবর ২৪, ২০১৮

ঢাকা : জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের অন্যতম নেতা ড. কামাল হোসেন বলেছেন, ‘জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের বিজয় অনিবার্য ও অবধারিত।ঐক্যবদ্ধ আন্দোলনের মাধ্যমে আমরা জনগণের মালিকানা ফিরিয়ে আনবো। রাষ্ট্রে জনগণের নিয়ন্ত্রণ আনবো। রাষ্ট্রের মূল মালিক হবে জনগণ।’

বুধবার (২৪ অক্টোবর) সিলেটের রেজিস্টারী মাঠে জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট আয়োজিত জনসভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। দুপুর ২টায় পবিত্র কোরআন তেলাওয়াতের মাধ্যমে এ সভা শুরু হয়।

তিনি বলেন, সংবিধানের ৭নং অনুচ্ছেদে রয়েছে জনগণ দেশের মালিক নেই। কিন্তু বর্তমানে জনগণের সেই মালিকানা নেই। এটা আদায় করে নিতে হবে। আমাদের ১ নম্বর দাবি অবাধ ও সুষ্ঠু নির্বাচন। এর সঙ্গে আরও ৬টি দাবি রয়েছে। এসব দাবির কথা গ্রামে গ্রামে ছড়িয়ে দিতে হবে।

তিনি আরও বলেন, দেশের মুষ্ঠিমেয় মানুষের উন্নয়নে উন্নয়ন হয় না। আমরা চাই, ১৬ কোটি মানুষের উন্নয়ন। আমরা ইনশাআল্লাহ বিজয়ী হব। আমাদের বিজয় অনিবার্য।

সমাবেশে প্রধান বক্তার বক্তব্যে বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেন, সিলেটবাসী অনেক ইতিহাসের জন্ম দিয়েছেন। আজ আরেকটি ইতিহাসের জন্ম দিচ্ছেন। এই ইতিহাস হচ্ছে গণতন্ত্র মুক্তির ইতিহাস।

তিনি বলেন, আজ থেকে নতুন লড়াইয়ের শুরু হলো। খালেদা জিয়াকে মুক্ত করতে হবে। ফিরিয়ে আনতে হবে আমাদের অধিকার। গণতন্ত্রকে মুক্ত করতে হবে। সরকারকে পরিষ্কার করে বলতে চাই, তফসিল ঘোষণার আগে পদত্যাগ করুন। নিরপেক্ষ সরকারের অধীনে নির্বাচন দিন। ইভিএম দেয়া চলবে না। ডিজিটাল চুরি করতে দেয়া হবে না। নির্বাচনে সেনাবাহিনী মোতায়েন করতে হবে।

বেলা ২টায় শুরু হয়ে সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত চলা এই সভায় জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের অন্য দুই শরিক দল জেএসডির আ স ম আবদুর রব এবং নাগরিক ঐক্যের মাহমুদুর রহমান মান্নাও উপস্থিত ছিলেন। এতে সভাপতিত্ব করেন সিলেট সিটি করেপারেশনের মেয়র বিএনপি নেতা আরিফুল হক চৌধুরী।

জনসভায় যাওয়ার আগে হজরত শাহজালাল ও শাহ পরানের মাজার জিয়ারত করেন জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের নেতারা।