কাজের মেয়েকে নির্যাতন, গৃহকর্তা আটক

মঙ্গলবার, অক্টোবর ৯, ২০১৮

রাজধানীর বংশালে বৃষ্টি (১৩) নামে এক গৃহকর্মী নির্যাতনের শিকার হয়েছে।

প্রতিবেশীরা তাকে উদ্ধার করে মঙ্গলবার রাত ৯ টায় ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করেন।

এ ঘটনায় গৃহকর্তা ইসমাঈল (৩৮) কে ঢামেক হাসপাতাল থেকে আটক করেছে ঢামেক পুলিশ ফাঁড়ি।

প্রতিবেশী মো. হোসেন জানান, বংশাল থানার ১৯৩ ছিক্কাটুলি মনির বাসার ৭ম তলার ভবনের ৭ম তলার ভাড়াটিয়া ইসমাঈলের বাসায় কাজ করতো। আমি ঐ বাসার নিচতলায় থাকি। প্রায়ই মেয়েটিকে মারধর করতো তারা চিৎকার শুনতাম। সর্বশেষ গত রবিবার তাকে তারা মারধর করেন। পরে আজ মেয়েটির শারীরিক অবস্থা দেখে আশপাশের লোকজনের সহযোগিতায় মেয়েটিকে সহ তার গৃহকর্তাকে ঢামেকে নিয়ে আসি।

আহত বৃষ্টি সাংবাদিকদের জানান, বিভিন্ন কাজ না পারায় গৃহকর্ত্রী নাদিয়া সুলতানা পায়েল ও কর্তা তাকে বিভিন্ন ভাবে মারধর করতো।

গরমপানিতে জলসানো সহ শরীরের অসংখ্য ছোট ছোট আঘাতের চিহ্ন রয়েছে।

এদিকে আটক ইসমাঈল জানান, বৃষ্টি ৩ মাস যাবত কাজ করে। আমার দুই মেয়ে স্ত্রী অন্তঃসত্ত্বা। মেয়ে ঘরের কাজবাজ করতো। বেশ কয়েক দিন আগে আমার এক মেয়ে জুতা ময়লার বেগে করে ফেলে দিয়ে ছিল, তাই আমি দুটি চর দিয়ে ছিলাম।

বংশাল থানার উপপরিদর্শক (এসআই) মো. মাহবুব আলম বলেন, মেয়েটি কে ঢামেক হাসপাতালের ওয়ান স্টপ ক্রাইসিস সেন্টার (ওসিসি) তে ভর্তি করা হয়েছে। আর এ ঘটনায় গৃহকর্তা কে আটক করা হয়েছে।