ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হয়ে ১২ দিনে হাসপাতালে ভর্তি ৮৯১ জন

শনিবার, আগস্ট ১৩, ২০২২

ঢাকা : চলতি মাসে বিগত ১২ দিনে ডেঙ্গু জ্বরে আক্রান্ত হয়ে সারা দেশের হাসপাতালে ৮৯১ জন রোগী ভর্তি হয়েছে। শুক্রবার (১২ আগস্ট) দেশের নির্ধারিত হাসপাতালগুলোয় ৫৩ জন রোগী ভর্তি হয়। এদিন আক্রান্ত রোগীর মধ্যে মাত্র তিনজন রাজধানীর বাইরের বলে জানিয়েছে স্বাস্থ্য অধিদপ্তর।

অধিদপ্তর সূত্রে জানা যায়, গত ২৪ ঘণ্টায় ডেঙ্গু জ্বরে আক্রান্ত হয়ে ৫৩ ব্যক্তি হাসপাতালে ভর্তি হয়েছে। চলতি বছর এ পর্যন্ত হাসপাতালে ভর্তি হওয়া ডেঙ্গু রোগীর সংখ্যা ৩ হাজার ১৮৯। আর এ রোগে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছে ১৬ জন। বর্তমানে হাসপাতালে ৩৪৬ জন ডেঙ্গু রোগী চিকিৎসাধীন আছে। তাদের মধ্যে ৭২ জন ঢাকার বাইরে চিকিৎসা নিয়েছে। এখন পর্যন্ত মোট ৩ হাজার ১৮৯ জন রোগীকে হাসপাতাল থেকে ছাড়পত্র দেয়া হয়েছে।

চলতি বছরের জানুয়ারিতে ১২৬ জন ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হয়েছে। ফেব্রুয়ারি ও মার্চে আক্রান্ত হয়েছে ২০ জন করে ৪০ জন। এরপর এপ্রিলে ২৩ জন, মে মাসে ১৬৩, জুনে ৭৩৭ এবং জুলাইয়ে ১ হাজার ৫৭১ জন। আর ১৬ জন মৃত ডেঙ্গু রোগীর মধ্যে কক্সবাজারে ১০ জন ও ঢাকায় ছয়জন।

ডেঙ্গু নিয়ন্ত্রণের বিষয়ে স্থানীয় সরকার বিভাগ ব্যর্থ হয়েছে বলে মনে করেন কীটতত্ত্ববিদ ও জনস্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞরা। তারা বলছেন, ডেঙ্গুকে কখনই রাজধানী বা রাজধানীর বাইরের বিষয় হিসেবে সীমাবদ্ধ করা যাবে না। যেখানেই এডিস মশা থাকবে, সেখানেই ডেঙ্গু রোগ ছড়াবে। মশা নিয়ন্ত্রণে স্থানীয় সরকার বিভাগ কাজ করে। বিষয়টি সম্পূর্ণ তাদের কার্যক্রমের আওতায়।

এডিস মশার উৎস ধ্বংসে রাসায়নিক প্রয়োগ করতে হবে। শুধু জনগণের সচেতনতা ডেঙ্গু প্রতিরোধ করতে পারবে না। ডেঙ্গু নিয়ন্ত্রণের জন্য সরকারি বিভাগগুলো প্রাতিষ্ঠানিক প্রতারণা করছে। আধুনিক কোনো প্রযুক্তি ও পরিকল্পনা সিটি করপোরেশন বা স্বাস্থ্য বিভাগের নেই। তারা শুধু জনগণকে সচেতন করছে।