দেশে করোনা টিকার নিবন্ধন ছাড়িয়েছে ৫ কোটি ৩৬ লাখ

বুধবার, অক্টোবর ১৩, ২০২১

ঢাকা : প্রাণঘাতী করোনাভাইরাস সংক্রমণ প্রতিরোধে টিকা পেতে আগ্রহী মানুষের নিবন্ধনের সংখ্যা ৫ কোটি ছাড়িয়েছে। সর্বশেষ তথ্যমতে, সারাদেশে টিকা নেওয়ার জন্য মোট নিবন্ধন করেছেন পাঁচ কোটি ৩৬ লাখ ৪২ হাজার ৯৮৮ জন। তাদের মধ্যে এখন পর্যন্ত প্রথম ডোজ দেওয়া হয়েছে ৩ কোটি ৭২ লাখ ৫ হাজার ৭৬৬ জনকে এবং দ্বিতীয় ডোজ পেয়েছেন ১ কোটি ৮৪ লাখ ৫৫ হাজার ১৬৯ জন।

বুধবার (১৩ অক্টোবর) স্বাস্থ্য অধিদফতর সূত্রে এই তথ্য জানানো গেছে।

সূত্র জানায়, টিকা পেতে জাতীয় পরিচয়পত্রের মাধ্যমে নিবন্ধন করেছেন পাঁচ কোটি ২৯ লাখ ২৬ হাজার ৪৯২ জন এবং পাসপোর্টের মাধ্যমে সাত লাখ ১৬ হাজার ৪৯৬ জন।

স্বাস্থ্য অধিদফতরের তথ্যমতে, দেশে এখন পর্যন্ত মোট টিকা এসেছে ৬ কোটি ৯৫ লাখ ৭২ হাজার ৪২০ ডোজ। এর মধ্যে ৫ কোটি ৫৬ লাখ ৬০ হাজার ৯৩৫ ডোজ টিকা দেওয়া হয়েছে। অর্থাৎ এ মুহূর্তে টিকা মজুত আছে এক কোটি ৩৯ লাখ ১১ হাজার ৪৮৫ ডোজ।

দেশে যুক্তরাজ্যের অক্সফোর্ডের অ্যাস্ট্রাজেনেকা, চীনের সিনোফার্ম, যুক্তরাষ্ট্র-জার্মানির ফাইজার ও যুক্তরাষ্ট্রের মডার্নার টিকা প্রয়োগ করা হয়েছে।

মঙ্গলবার (১২ অক্টোবর) দুই ডোজ মিলিয়ে দেওয়া হয়েছে ৪ লাখ ৪৭ হাজার ৮৬৬ ডোজ টিকা। এদিন অ্যাস্ট্রাজেনেকার প্রথম ডোজ দেওয়া হয়েছে ৮ হাজার ২৫৩ জনকে এবং দ্বিতীয় ডোজ দেওয়া হয়েছে ১ হাজার ২৩৯ জনকে। ফাইজারের প্রথম ডোজ দেওয়া হয়েছে ১৪ হাজার ৫৯৭ জনকে এবং দ্বিতীয় ডোজ দেওয়া হয়েছে ৮৫ জনকে।

এছাড়া সিনোফার্মের টিকার প্রথম ডোজ নিয়েছেন দুই লাখ ৫৫ হাজার ৬৮২ জন এবং দ্বিতীয় ডোজ নিয়েছেন এক লাখ ৫৯ হাজার ৩৩৬ জন। আর মডার্নার টিকার প্রথম ডোজ নিয়েছেন ৭ হাজার ৮৮৭ জন এবং দ্বিতীয় ডোজ দেওয়া হয়েছে ৭৮৭ জনকে।

চলতি বছরের ২৭ জানুয়ারি দেশে করোনাভাইরাস প্রতিরোধে টিকাদান কর্মসূচি শুরু হয়। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা রাজধানীর কুর্মিটোলা জেনারেল হাসপাতালে ভারতের সিরাম ইনস্টিটিউট উৎপাদিত অ্যাস্ট্রাজেনেকার টিকার মাধ্যমে কর্মসূচির উদ্বোধন করেন।