মেয়েকে যে ধরনের জীবনসঙ্গী বেছে নেয়ার পরামর্শ শাহরুখের

বুধবার, সেপ্টেম্বর ২৫, ২০১৯

বিনোদন ডেস্ক: সুহানা খান নামটি এখন বলিউডের আঙিনা ছাড়িয়ে দেশ ও দেশের বাইরেও বেশ পরিচিত। অথচ সুহানা নিজে কোনও অভিনেত্রী নন, নন কোনও তারকাও। তাতে কি, তিনি যে তারকা-কন্যা! তিনি যে ‘কিং অব রোমান্স’ খ্যাত শাহরুখ তনয়া। আর বলিউড সুপারহিরো শাহরুখ খানের মেয়ে বলেই সুহানাকে নিয়ে এত মাতামাতি।

ক’বছর আগের সেই ছোট্ট সুহানা এখন ষোলকলা যুবতী। রূপে আর গুণে এরইমধ্যে বি-টাউনের ঘুম হরণ করেছেন। যেকোনও সময় বলিউডে অভিষেক হবে তার।

গতকাল ২৪ সেপ্টেম্বর ছিল বিশ্ব কন্যা দিবস। এ দিনটিকে ঘিরে মেয়েকে ভবিষ্যত জীবনের দিকে পথ প্রদর্শন করলেন শাহরুখ।

সুহানার কেমন জীবনসঙ্গী বেছে নেয়া উচিত? কন্যা দিবসে মেয়েকে শাহরুখ বলেন, ‘আমি চাই তুমি ঠিক আমার মতো একজন মানুষকে জীবনসঙ্গী হিসেবে বেছে নাও। কারণ আমি তোমার মায়ের কথার অবাধ্য হইনি কখনও।’

শাহরুখ খান ক্যারিয়ারে বহুবার ‘রাহুল’ ও ‘রাজ’ চরিত্রে অভিনয় করেছেন। যেখানে তাকে অতি রোমান্টিক দৃশ্যেও দেখা গেছে। যেসব দৃশ্য যুগ যুগ পরও হয়তো হিন্দি ছবির দর্শকেরা চোখ থেকে মুছে ফেলতে পারবেন না। তবে মেয়ে যেন রাহুল কিংবা রাজের মতো কাউকে জীবনসঙ্গী কখনোই না করে সেই সতর্ক বার্তাও সুহানাকে দিয়ে রেখেছেন তিনি।

সুহানাকে তার বাবা বলেন, ‘কোনও পুরুষ যদি তোমার সঙ্গে রাজ বা রাহুলের মতো ‘খারাপ’ আচরণ করে, তাহলে তাকে লাথি মারো। রাহুল বা রাজদের থেকে ১০০ হাত দূরে থাকো।’

শাহরুখ আরও বলেন, ‘আমার মেয়েকে বলে দিয়েছি, তার কাছে কোনও ছেলে ভাব নিয়ে এসে যদি বলে- ‘আমি রাহুল, নাম তো শুনেছ নিশ্চয়ই’। তখন যেন আমার মেয়ে বুঝতে পারে সে উত্ত্যক্তকারী। যদি কোনও পার্টিতে কোনও ছেলে তার আশপাশে ঘুরঘুর করে আর বলে- ‘আরও কাছে, আরও কাছে’- তবে যেন সুহানা তার পায়ে জোরে একটা লাথি মারে।’

এসময় বহু রোমান্টিক ছবির অভিনেতা শাহরুখ প্রেমের অনুভূতি ব্যক্ত করতে গিয়ে বলেন, ‘প্রেম অন্য এক অনুভূতি। কখনও মুহূর্তকে মহাকাল কখনও মহাকালকে মুহূর্তে বেঁধে ফেলে। আমি কিন্তু ব্যক্তিগত জীবনে ছবির সেই ‘রাহুল’ কিংবা ‘রাজ’ এর মতো নই। কারণ আমি দুহাত প্রসারিত করে কাউকে প্রেম নিবেদন করলে সুহানার মা আমাকে বাড়ি থেকে বের করে দেবে।’

যুক্তরাষ্ট্রের নিউইয়র্কে অধ্যয়নরত শাহরুখ কন্যা সুহানা খানও অভিনয় জগতে পা রাখতে চান। তবে সুপারহিরো শাহরুখ খানের মতো করে নয়, অভিনয়ে নিজের জাত চেনাতে চান এই ষোড়শী।