ফের অনশনে বসবেন আন্না হাজারে

শনিবার, ডিসেম্বর ২২, ২০১৮

আন্তর্জাতিক ডেস্ক : জীবনের একটা বড় সময় কাটিয়েছেন দেশের সেনাবাহিনীতে। দেশ থেকে দুর্নীতি দূর করতে তিনি বদ্ধ পরিকর। সেই উদ্দেশ্যেই ফের অনশনে বসতে চলেছেন আন্না হাজারে।

একবিংশ শতকের দ্বিতীয় দশকে সমগ্র ভারতের নজর কেড়েছিলেন সমাজকর্মী আন্না হাজারে। দেশ থেকে দুর্নীতি দূর করতে তিনি লোকপাল এবং লোকায়ুক্ত বিল পাস করানোর দাবি করেন। শুধু তাই নয় দাবি মানার দাবিতে দিল্লিতে শুরু করেন অনশন।

আন্না শিবিরের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে যে আগামী ৩০ জানুয়ারি থেকে ফের অনশনে বসতে চলেছেন আন্না হাজারে। এবার আর জাতীয় রাজধানী দিল্লি নয় মহারাষ্ট্রের রালেগান সিদ্ধি গ্রামে অনশনে বসবেন আন্না।

কিন্তু মহারাষ্ট্র কেন? এই বিষয়ে আন্না হাজারে জানিয়েছেন যে ২০১৪ সালে মহারাষ্ট্র সরকারের পক্ষ থেকে লোকপাল এবং লোকায়ুক্ত বিল পাস করার প্রতিশ্রুতি দেওয়া হয়েছিল। কিন্তু তা করা হয়নি। সেই কারণেই ফের প্রতিবাদে নামতে চলেছেন আন্না।

এর আগে আন্না হাজারের আন্দোলনে রীতিমত আলোড়ন সৃষ্টি হয়েছিল। কেন্দ্রে তখন দ্বিতীয় ইউপিএ সরকারের রাজত্ব চলছে। সরকারের পক্ষ থেকে আন্নার দাবি মেনে বিলের খসড়া পাঠানো হয় আন্না বাহিনীর কাছে। সেই খসড়ায় আপত্তি ছিল আন্নার।

রাজনৈতিক দলের বিরুদ্ধে দুর্নীতির অভিযোগ নতুন কিছু নয়। তবে এই বিষয়ে একের বিরুদ্ধে আরেক রাজনৈতিক দলগুলিকেই সরব হতে দেখা যেতো। কিন্তু আন্না হাজারে ভেঙে দিয়েছিলেন সেই চিরাচরিত প্রথা। অরাজনৈতিক ব্যক্তি এবং সংগঠন করে দুর্নীতি দূর করতে সচেষ্ট হয়েছিলেন।

আন্নার অনুগামীদের অনেকে এই মতের বিরোধী ছিলেন। অরাজনৈতিক পথে দুর্নীতি দুরীকরণ অসম্ভব মনে করেছিলেন অরভিন্দ কেজরিওয়াল। যিনি আন্না হাজারের সঙ্গে অনশন করতে বসেছিলেন।

২০১৩ সালে আম আদমি পার্টি নামের রাজনৈতিক দল গঠন করে। সেই দল দিল্লির বিধানসভা নির্বাচনে লড়াই করেছিল। একাধিকবার নির্বাচনে জিতে ক্ষমতা দখল করে দিল্লির। দুই দফায় মুখ্যমন্ত্রী হয়েছেন অরভিন্দ কেজরিওয়াল।

তথ্যসূত্র: কলকাতা ২৪×৭